admin
এপ্রিল ২৪, ২০২১
  • No Comments

    বড় দুর্ঘটনায় ইলন মাস্কের কোম্পানির গাড়ি, সুরক্ষা নিয়ে প্রশ্ন

    ইলন মাস্কের কোম্পানি টেসলার মডেল এস গাড়ির দুর্ঘটনায় দুই আরোহীর মৃত্যু টেক্সাসে। গাড়িটি তখন অটোপাইলট মোডে ছিল। তদন্ত শুরু।
     
    ইলন মাস্কের টেসলা উন্নত প্রযুক্তির গাড়ি তৈরি করে। অটোপাইলট মোডের এই গাড়ি চালক ছাড়াই চালানো যায়। সেই গাড়িরই দুর্ঘটনা হয়েছে।
    দুর্ঘটনার সময় মাস্কের টেসলা কোম্পানির মডেল এস গাড়ি অটোপাইলট মোডে চলছিল বলে কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে। গাড়িটি একটা বাঁক মিস করে। তারপর সোজা তা একটা গাছে গিয়ে ধাক্কা মারে। গাড়িতে আগুন ধরে যায়। দুই জন আরোহীর মৃত্যু হয়।
     
    স্থানীয় কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, গাড়ির আগুন নেভাতে এক লাখ লিটার জল লেগেছে। গাড়ির ব্যাটারিতে বারবার আগুন ধরে যাচ্ছিল।
     
    সরকারি কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, গাড়িটি কেউ চালাচ্ছিলেন না। কারণ, আগুন নেভানোর পর তারা দেখেন চালকের পাশের আসনে এক আরোহী পুড়ে মারা গেছেন। আরেকজন পিছনের আসনে বসেছিলেন। গাড়ি চলছিল অটোপাইলট মোডে।
    এই দুর্ঘটনার কয়েক ঘণ্টা আগেই মাস্ক দাবি করেছিলেন, টেসলার অটোপাইলট গাড়ির দুর্ঘটনার সম্ভাবনা অন্য সাধারণ গাড়ির তুলনায় অনেক কম। বস্তুত তার দাবি, সাধারণ গাড়ির দুর্ঘটনার সম্ভাবনা টেসলার তুলনায় ১০ গুণ বেশি।
     
    এরপরই অ্যামেরিকার ন্যাশনাল হাইওয়ে ট্রাফিক সেফটি অর্গানাইজেশন এবং ন্যাশনাল ট্রান্সপোর্টেশন সেফটি বোর্ড দুর্ঘটনার বিশেষ তদন্ত শুরু করেছে। তারা টেসলাকে গাড়ির বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করছে। স্থানীয় কর্মকর্তাদের সঙ্গেও কথা বলা হচ্ছে।
     
    টেসলার গাড়ির সুরক্ষা নিয়েও প্রশ্ন উঠে গেছে। কনজিউমার রিপোর্টস-এর কেলি ফাঙ্কহাউস জানিয়েছেন, ”কয়েক বছর ধরেই টেসলা তাদের গাড়ির সুরক্ষা রিপোর্ট নিয়ে ঠিক তথ্য দিচ্ছে না। গাড়ির কার্যকারিতা নিয়ে তাদের দাবিই বিশ্বাস করতে হবে।”