admin
ডিসেম্বর ১২, ২০২০
  • No Comments

    বাকঁখালী নদীতে অবৈধভাবে বালি উত্তোলন বন্ধের দাবীতে রামুতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত

     
    রামু প্রতিনিধিঃ
    রামুতে বাকঁখালী নদী খননের নামে বালি বিক্রি বাণিজ্য বন্ধ ও অবৈধভাবে বালি উত্তোলন বন্ধের দাবীতে ও ক্ষতিগ্রস্হ কৃষক কে ক্ষতিপূরণ প্রদানের দাবীতে রামু উন্নয়ন নাগরিক কমিটির মানববন্ধন অনুষ্টিত হয়েছে।
    বাকঁখালী নদী থেকে অবৈধ ভাবে বালি উত্তোলন করে ব্যবসা-বাণিজ্য,কৃষি ক্ষেত থেকে মাঠি উত্তোলম করে কৃষকদের ক্ষেতের ফসল নষ্ট,ব্রীজের ক্ষতিসাধনের প্রতিবাদে রামু উন্নয়ন নাগরিক কমিটি ও রামু সমিতি সৌদিআরব সহ স্হানীয় জনগনের যৌথ উদ্যোগ ১২ই ডিসেম্বর সকাল ১০টায় রামু ফতেখাঁরকুল সংযোগস্থল নতুন ব্রীজের উপর রামু উন্নয়ন নাগরিক কমিটির সভাপতি সাংবাদিক নুরুল ইসলাম সেলিম এর সভাপতিত্বে উক্ত মানববন্ধন
    অনুষ্টিত হয়েছে।
    উক্ত মানববন্ধনে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও কক্সবাজার জেলা পরিষদের সদস্য শামসুল আলম মন্ডল,যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সুর্জন শর্মা, সহ দপ্তর সম্পাদক হাকিম আলী, কৃষি বিযয়ক সম্পাদক আলী হোসেন মেম্বার, রামু সমিতির সৌদি আরব সভাপতি জুবায়ের আহমদ ভূটুো।
    তাছাড়া মানববন্ধনে ফতেখাঁরকুল ইউনিয়ন সভাপতি আব্দুর রহিম, ইউনিয়নের সাংগঠনিক সম্পাদক সালামত উল্লাহ, রামু সমিতির সৌদি আরব সাংগঠনিক সম্পাদক মোতাহের শিকদার,কাজী আবু বক্কর, সমাজসেবক জাফর আলম, ১নং ওয়ার্ডের সভাপতি ছৈয়দুল আমিন,২নং ওয়ার্ডের সভাপতি জাফর আলম, রাজারকুল ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের সভাপতি লিয়কত আলীসহ,রাজনৈতিক,সাংবাদিক, সামাজিক ও পেশাজীবী নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন, প্রমূখ।
    মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, বাকঁখালী নদী খননের নামে বালী বাণিজ্য ও অবৈধভাবে বালি উত্তোলন বন্ধের দাবীসহ উভয় পাশে স্হায়ী বেড়ীবাঁধ নিমাণ করার জন্য সরকারের নিকট দাবী জানান।এবং সরকারী শিডিউল মোতাবেক কাজ করা সহ এলাকার ফসলী জমির মালিকদের ক্ষতিপূরণ ও ব্রীজের রক্ষার দাবী জানান,এই দাবী না মানলে আরো বৃহত্তর কর্মসুচি প্রদান করা হবে বলে নেতৃবৃন্দরা জানান।
    রামু উন্নয়ন নাগরিক কমিটির সভাপতি সাংবাদিক নুরুল ইসলাম সেলিম বলেন, দীর্ঘ দিন যাবত ওয়েস্টার্ন ইন্জিনিয়ারিং ঠিকাদারি প্রতিষ্টান রামু বাকঁখালী খননের নামে ড্রেজার মিশিন দিয়ে বালি উত্তোনের নামে বাণিজ্য করে যাচ্ছে। সরকারী শিডিউল মোতাবেক কাজ না করে বাকঁখালী নদীর দুই পাশে স্হায়ী বেড়ীবাঁধ না করে যেখানে বালির স্তুপ গড়ে উঠেছে।
    সেইখানে ড্রেজার মিশিন দিয়ে বালি বিক্রির মহাৎসবে মেতে উঠেছে ওয়েস্টার্ন ইন্জিনিয়ারিং নামে এই প্রতিষ্টান । বালি উত্তোলন করে সাধারণ কৃষকের ক্ষেতের ফসল নষ্ট করে ক্ষতিসাধন করে ক্ষতিপূরণ না দিয়ে বালি তুলে যাচ্ছে। এবং ব্রীজের ক্ষতি করার ষড়যন্ত্রের মাধ্যমে বালি উক্তোলন করে যাচ্ছে। তাই জনস্বার্থে প্রশাসনের সু-দৃষ্টি কামনা করছি।